165 বার প্রদর্শিত
"স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন (142 পয়েন্ট)  
পূনঃপ্রদর্শিত করেছেন

3 উত্তর

1 টি পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
উত্তর প্রদান করেছেন (699 পয়েন্ট)  
নির্বাচিত করেছেন
 
সর্বোত্তম উত্তর
বেশী মোটা কিংবা শুকনা কোনোটাই ভাল নয়;
মাঝামাঝি থাকাটাই মঙ্গলময়। স্বাস্থ্য প্রকৃতিগত
ভাবে পাওয়া। চাইলেই যদি সব পাওয়া যেত তাহলে
ইচ্ছেমত সবাই শরীরটাকে বদলে দিত, তবে হ্যা
চর্চার মাধ্যমে সব অসম্ভবকে সম্ভব করা যায়।
নিয়মিত অনুশীলন, চেষ্টা ধৈর্য আপনার চাওয়াকে
পাওয়াতে পরিণত করবে। যারা খুব শুকনা তারা
মোটা হওয়ার উপায়গুলো জেনে নিন। ০যদি নিয়মিত
পুষ্টিকর খাবার খান এবং রাতের ঘুম ঠিক রাখেন
তাহলে আপনি তাড়াতাড়ি আপনার স্বাস্থ্য মোটা
করতে পারবেন। না ঘুমাতে পারলে আপনার শরীর
ক্যালরী ধরে রাখতে পারে না। রাতে তাড়াতাড়ি
খাওয়া শেষ করুন এবং তাড়াতাড়ি ঘুমিয়ে পড়ুন।
০একটা নিদিষ্ট সময় ধরে খাবেন। সকালে ঘুম থেকে
উঠে এক ঘন্টার মধ্যে সকালের নাস্তা শেষ করুন।
সকালে প্রচুর পরিমাণে খেয়ে নিতে পারেন। হ্যাম
বার্গার, ভাজা খাবার, চিকেন ব্রেস্ট খেলেও ক্ষতি
নেই। ০সফ্ট ড্রিংকস্ এবং ফ্যাটি খাবার খেলে
স্বাস্থ্য মোটা হয়। এতে হাই-ইন্সুলিন থাকে।
ইন্সুলিন হরমোন তৈরি করে। যার সাহায্যে শরীরে
কার্বোহাইড্রেট, প্রোটিন এবং ফ্যাট জমে। যখন
ফ্যাটি ফুডস্ খাবেন তখন পানি পান করুন; সফ্ট
ড্রিংকস্ নয়। এমনকি ডায়েট সফ্ট ড্রিংকস্ও নয়।
এটা খেলে আপনি ফ্যাটি ফুড খেতে পারবেন না।
০এনার্জি ফুড খেলেও আপনি মোটা হবেন। শরীরে
যদি এনার্জি ফুড না থাকে তাহলে শরীরে শক্তিই
থাকে না মোটা হওয়া তো দূরের কথা। আপনি
কখনো ব্যাটারিতে ল্যাপটপ কম্পিউটার চালাতে
পারবেন না যদি প্লাগ না দেন। শরীরও তার
ব্যতিক্রম নয়। ০টেনশনমুক্ত থাকুন। নিয়মিত
ব্যায়াম করুন। ব্যায়াম করলে ক্ষুধা বেড়ে যায়
টেনশন দূরে করে। ০প্রচুর ফল খান। ফল পুষ্টিকর
খাবার এতে প্রচুর ক্যালরি পাওয়া যায়। প্রতিদিন
ফল এবং ফলের রস খান। ফলের তৈরি বিভিন্ন
সিরাপ, কুবিথ, গাম, জ্যাম, জ্যালি খান এতে ফ্যাট
আছে যা আপনার স্বাস্থ্য মোটা করবে।
০এ্যালকোহল পান করলে শরীর মোটা হয়। এটা
আপনার মাংশপেশীতে হরমোন তৈরি করে। আপনার
শরীরে যখন অতিরিক্ত ক্যালরির প্রয়োজন হয়
দিনের শেষে সন্ধ্যার দিকে তখন এ্যালকোহল পান
করুন। এ্যালকোহলে প্রচুর ক্যালরি পাওয়া যায়।
রাতে এ্যালকোহল পান করে তাড়াতাড়ি রাতের
খাবার সেরে ঘুমিয়ে পড়ুন। এরপর দেখুন কোন
পরিবর্তন আসে কিনা :)
3 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
উত্তর প্রদান করেছেন (815 পয়েন্ট)  
পূনঃপ্রদর্শিত করেছেন
মোটা হওয়ার জন্য আপনার যা করনীয়ঃ নিয়মিত সময় মত খাবার খাওয়া পূর্বের তুলনায় একটু বেশি খাওয়ার চেষ্টা করবেন, অতিরিক্ত প্রোটিন যুক্ত খাবার খাবেন ও নিয়মিত ঘুম ও গোসল করলে হালকা মোটা হতে পারবেন, আর খাবারের চাহিদা না থাকলে সিনকারা, খেতে পারেন, এছাড়া চর্বি খাবার খাবেন।আর আপনি আমলকি প্লাস খেতে পারেন।
নেশা জাতীয় কোনকিছুর সাথে যুক্ত থাকলে পরিহার
করা,আপনার স্বাস্থ্যর জন্য ক্ষতিকর হবে এরকম
দিকে লিপ্ত থাকলে প্রত্যাখ্যান করা।
1 টি পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
উত্তর প্রদান করেছেন (452 পয়েন্ট)  
পূনঃপ্রদর্শিত করেছেন
ভাইয়া আপনি প্রতিদিন রাতে ঘুমানোর আগে ১ গ্লাস দুধ আর সকালে খালি পেটে অন্তত্য আধা কেজি পানি ও ১টি গরম ডিম সেদ্ধ সকাল ৯-১০ টার মধ্যে যে কোন নাস্তা। প্রতিদিন অল্প/পরিমান মত ৪-৫ বার খাওয়া। রাতে অন্তত ৭-৮ ঘন্টা ঘুম। সম্ভব হলে দুপুরে খাওয়ার পর ১ ঘন্টা ঘুম। ইনশাআল্লাহ, আপনারও আমার মত ওজন বাড়বে। *** খাবারে রুচির জন্য আমি সকালে খালি পেটে ১-২ চামচ নিমের রস অথবা কখনো চিরতার পানি খাই। মাঝে মাঝে অর্জুনের ছাল ভিজিয়ে খাই। অর্জুন গ্যাস্ট্রিক, বদ হজম এর জন্যও ভাল কাজ করে।নিম, চিরতা, অর্জুন এই ৩টিই ক্ষুধা বৃদ্ধি করে এবং রুচি বাড়ায়। এই গুলো মেদ নিয়ন্ত্রন করে। আপনি খাবার খাবেন, স্বাস্থ্যবান হবেন কিন্তু মেদ ভুরি থাকবে না।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
1 উত্তর
1 উত্তর
12 ডিসেম্বর 2017 "প্রেম-ভালোবাসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Md sumon (113 পয়েন্ট)  
2 টি উত্তর

19,399 টি প্রশ্ন

16,107 টি উত্তর

2,105 টি মন্তব্য

908 জন সদস্য



প্রশ্ন অ্যানসারস এমন একটি প্ল্যাটফর্ম, যেখানে কমিউনিটির এই প্ল্যাটফর্মের সদস্যের মাধ্যমে আপনার প্রশ্নের উত্তর বা সমস্যার সমাধান পেতে পারেন এবং আপনি অন্য জনের প্রশ্নের উত্তর বা সমস্যার সমাধান দিতে পারবেন। মূলত এটি বাংলা ভাষাভাষীদের জন্য একটি প্রশ্নোত্তর ভিত্তিক কমিউনিটি। বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার পাশাপাশি অনলাইনে উন্মক্ত তথ্যভান্ডার গড়ে তোলা আমাদের লক্ষ্য।

  1. ALAmin Biswas

    508 পয়েন্ট

  2. ইউনুস

    286 পয়েন্ট

  3. siraznets

    218 পয়েন্ট

  4. R.A.rupu SR(pl)

    134 পয়েন্ট

  5. Abinashray

    102 পয়েন্ট

***(প্রশ্ন অ্যানসার- এ প্রকাশিত প্রশ্ন, উত্তর, মন্তব্যসহ যাবতীয় সকল কার্যকলাপের সম্পূর্ণ দায়ভার শুধুমাত্র সংশ্লিষ্ট প্রকাশকারী সদ্যসের...)
...