15 বার প্রদর্শিত
"বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন (3,235 পয়েন্ট)  

1 উত্তর

0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
উত্তর প্রদান করেছেন (1,262 পয়েন্ট)  

পা ও হাতের তালুসহ শরীরের আরও কতগুলো স্থান এ রকম স্পর্শকাতর; সামান্য ছোঁয়াতেই ভীষণ সুড়সুড়ি লাগে। এর কারণ হলো, ওই সব স্থানে অনেক বেশি স্নায়ুতন্তুর সমাবেশ রয়েছে। সে কারণে সেখানে খুব হালকা স্পর্শও প্রবলভাবে অনুভূত হয়। কিন্তু প্রশ্ন হলো, কেন শরীরের কয়েকটি নির্দিষ্ট স্থানে স্নায়ুতন্তুর ঘন সন্নিবেশ। বিজ্ঞানীদের মতে, মানব-প্রজাতির বিবর্তনের ধারায় এ সুড়সুড়ি লাগার ব্যাপারটি ভূমিকা রেখেছে। অবাক হতে হয় এই ভেবে যে, বাহুমূল স্পর্শকাতর হলে একটি প্রজাতি কি তার বিবর্তনে বিরাট উপকার পেতে পারে? বিশেষজ্ঞ ব্যক্তিরা বলেন, সেটা হতে পারে। বগলের অবস্থান এমন যে সেখানে কোনো খোঁচা লাগলে তার পরিণামে পুরো বাহুর স্নায়ু ও শিরাতন্ত্র ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে, এমনকি হাত অবশ হয়ে যেতে পারে। সে জন্যই বাহুমূলে সামান্য স্পর্শানুভূতি সতর্কসংকেত হিসেবে কাজ করে। পা ও হাতের তালুর ব্যাপারও ওই রকমই। আদিম যুগে খালি পায়ে মানুষ চলাফেরা করত। সে সময় সুরক্ষার জন্য পায়ের তালুর চামড়া পুরু ও শক্ত হয়েছে। কথাটা ঘুরিয়ে বলা যায়, মানব-প্রজাতির পায়ের নিচের পুরু চামড়ার কারণে বিবর্তনের ধারায় তার টিকে থাকা সহজ হয়েছে।


ধন্যবাদ। 

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

0 টি উত্তর
06 জুলাই "বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন R.A.rupu SR(pl) (3,235 পয়েন্ট)  
0 টি উত্তর
06 জুলাই "বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন R.A.rupu SR(pl) (3,235 পয়েন্ট)  
0 টি উত্তর
04 মে "বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Siddique (3,662 পয়েন্ট)  
2 টি উত্তর
02 এপ্রিল "বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Munir Hasan (-170 পয়েন্ট)  

19,942 টি প্রশ্ন

17,764 টি উত্তর

2,380 টি মন্তব্য

1,071 জন সদস্য



প্রশ্ন অ্যানসারস এমন একটি প্ল্যাটফর্ম, যেখানে কমিউনিটির এই প্ল্যাটফর্মের সদস্যের মাধ্যমে আপনার প্রশ্নের উত্তর বা সমস্যার সমাধান পেতে পারেন এবং আপনি অন্য জনের প্রশ্নের উত্তর বা সমস্যার সমাধান দিতে পারবেন। মূলত এটি বাংলা ভাষাভাষীদের জন্য একটি প্রশ্নোত্তর ভিত্তিক কমিউনিটি। বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার পাশাপাশি অনলাইনে উন্মুক্ত তথ্যভান্ডার গড়ে তোলা আমাদের লক্ষ্য।

...